1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Amirath Sadia : Amirath Sadia
মাদারীপুরে মাসব্যাপী চলা ব্যাডমিন্টন খেলার সমাপনী আসর অনুষ্ঠিত হয়েছে
শুক্রবার, ১৩ মে ২০২২, ০১:৩৩ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিংঃ
পাঁচখোলা ইউনিয়নে দুস্থদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ নারী শিক্ষা কিভাবে পরিবারের উন্নয়নে ভূমিকা রাখতে পারে? মাদারীপুরে মাসব্যাপী চলা ব্যাডমিন্টন খেলার সমাপনী আসর অনুষ্ঠিত হয়েছে আসামি শনাক্তকারীকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে দুই পা ভেঙে দিয়েছে আসামিপক্ষ কানাডায় ঢুকতে পারেন নি এমপি ‍মুরাদ, সম্ভাব্য গন্তব্য দুবাই মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস নিয়ে তৈরী হবে মোবাইল অ্যাপলিকেশন শিবচরে দাদন চোকদার হত্যা মামলার আসামি গ্রেফতার খেলার মাঠে পাকিস্থানী পতাকা উড়ানো, মুক্তিযুদ্ধের অপমান টুঙ্গিপাড়ায় স্বতন্ত্র ২ প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার মাদারীপুরে ভিটামিন এ ক্যাপসুল খাওয়ানো শুরু হচ্ছে

মাদারীপুরে মাসব্যাপী চলা ব্যাডমিন্টন খেলার সমাপনী আসর অনুষ্ঠিত হয়েছে

  • তারিখ : শুক্রবার, ২৪ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ৫৪ বার শেয়ার হয়েছে

‘খেলাধুলায় ব্যস্ত রাখি, মাদক থেকে দূরে থাকি’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে প্রতিবছরের ন্যয় শেষ হলো মরহুম আবু বক্কর মাতুব্বর স্মৃতি ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্ট ২০২১।

১৮ ই নভেম্বর থেকে শুরু হওয়া মাসব্যাপী এই ইভেন্টে মাদারীপুর ফেরীঘাট এলাকার মোট ১০ টি দল অংশ নেয়। উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হয় পাকা মসজিদ বনাম ফেরীঘাট এলাকা।

শীতের শিরশির হাওয়ার আগমনী বার্তা হলো, গ্রাম থেকে শুরু করে শহরের অলিতে গলিতে ব্যাডমিন্টনের কোর্ট। নভেম্বর-ডিসেম্বর মাসে খেলাটির প্রতি প্রবল আগ্রহ জানান দেয় শীত আর ব্যাডমিন্টন যেন একসুত্রে গাঁথা।

বাংলাদেশে ক্রিকেট এবং ফুটবল প্রেমীদের সংখ্যা বেশি হলেও এদেশের মানুষের কাছে শীত মানেই ব্যাডমিন্টন। মাসব্যাপী চলা এই টুর্নামেন্টের সমাপণী পর্ব শুরু হয় আজ সন্ধায়।

তুমুল প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ ফাইনাল খেলায় মুখোমুখি হয় জিয়াদ-স্বাধীন বনাম আসাদ-ইসতিয়াক গ্রুপ। ৮-১৫ ব্যবধানে বিজয়ের শিরোপা ওঠে জিয়াদ-স্বাধীনের হাতে।

রানার্সআপ গ্রুপের পক্ষে মাওঃ আসাদুজ্জামান সাইফ মাদারীপুর২৪ ডটকমকে বলেন, খেলায় হারজিত থাকবেই; জেতাটাই এখানে মুখ্য নয়। আমাদের লক্ষ্য খেলাধুলাকে যুব সমাজের মাঝে ছড়িয়ে দেওয়া।

খেলায় আগত অতিথিদের মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শামিম আফফান বলেন “শীতকালীন পরিবেশে এই ধরনের সাংস্কৃতিক টুর্নামেন্ট আয়োজন গ্রামীণ সংস্কৃতিতে এক ধরনের আমেজ বয়ে আনে। উঠতি বয়সী তরুনদের মাদক সেবন থেকে দূরে থাকতে উদ্ধুদ্ধ করে। আমি মনে করি এমন আয়োজন প্রতিটি গ্রামে গ্রামে হওয়া উচিত। যার জন্য দরকার সরকারের পৃষ্ঠপোষকতা”

খেলা দেখতে আসা স্বতঃফুর্ত দর্শকদের মধ্যে তাইজুল ইসলাম বলেন “বর্তমান সমাজ মোবাইলের মধ্যে গেথে আছে। সেই গন্ডির বাইরে গিয়ে যুব সমাজ যে স্ব-ইচ্ছায় খেলাধুলায় অংশ গ্রহণ করছে তা অবশ্যই প্রশংসার দাবী রাখে।“

খেলা পরিচালনা কমিটির প্রধান মোঃ ইমরান মাতুব্বর বলেন “সামনের বছর আরো বড় আসর করার পরিকল্পনা রয়েছে। সরকারী পৃষ্ঠপোষকতা পেলে যেমন বিজদেরদেরকে আরো বড় সম্মাননা দেওয়া যাবে, একই সাথে গ্রাম-বাংলা থেকেও যোগ্য খেলোয়াড় উঠিয়ে আনা যাবে।

রাতেই পুরস্কার বিতরণীর মধ্য দিয়ে মাসব্যাপী চলা এ আসরের সমাপ্তি ঘোষনা করা হয়।

শেয়ার করুন

আরো পড়ুন
প্রকাশক কর্ত্বক সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া সাইটের ছবি, কন্টেন্ট ব্যবহার বেআইনি।
Theme Customized By BreakingNews